Home / Featured / টোলের নামে সড়ক মহাসড়কে চাঁদাবাজির “মহোৎসব”

টোলের নামে সড়ক মহাসড়কে চাঁদাবাজির “মহোৎসব”

নিউজ ডেস্ক : দেশের সড়ক ও মহাসড়কগুলোতে চলছে একরকম ‘চাঁদাবাজির মহোৎসব’। প্রতিদিন শুধু মহা সড়ক থেকে চাঁদা উঠছে ২৩ লাখের ও বেশি টাকা । যা বছরে দাঁড়ায় ৮৫ কোটি ৩৭ লাখ প্রায় । বিভিন্ন মহাসড়ক দিয়ে চলাচলকারী ৫৮ হাজার ৭১৯টি যানবাহন থেকে তোলা হচ্ছে মোটা অঙ্কের এ চাঁদা। এ টাকা আদায় করছে পরিবহনের মালিক-শ্রমিকের নামে ২১৫টি সংগঠন। এগুলোর নেতৃত্বে আছেন সরকারি দলের বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের প্রভাবশালী নেতা। মূলত তাদের ছত্রছায়ায় গড়ে উঠেছে মহসড়কে চাঁদা আদায়কারী সংগঠনগুলো।

পরিবহন মালিক-শ্রমিক ছাড়াও মহসড়কের বিভিন্ন স্থানে পৌর কর ও মসজিদ উন্নয়নের নামেও প্রতিদিন আদায় করা হচ্ছে মোট অঙ্কের অর্থ। হাইওয়ে পুলিশের এক তদন্ত প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এমন সব চাঞ্চল্যকর তথ্য। প্রতিবেদনটি পুলিশের বিশেষ শাখার ডিআইজি (রাজনৈতিক) এবং পুলিশ সদর দফতরের অতিরিক্ত ডিআইজির (ইনটেলিজেন্স অ্যান্ড স্পেশাল অ্যাফেয়ার্স) কাছে দেয়া হয়েছে।

চাঁদাবাজির এ চিত্র শুধু মহাসড়কের। তবে জেলার অভ্যন্তরে বিভিন্ন সড়কে চাঁদা আদায়ের ব্যাপকতা আরও অনেক বেশি। এক একটি স্থানিয় বাজারে সিএনজি, অটো, মিশুক, দৈনিক ১০ টাকা থেকে শুরু করে ৪০ টাকা এবং কিছূ পৌর এলাকায় ৮০/১০০ টাকা নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

মহসড়ক ও আঞ্চলিক সড়কে চাঁদাবাজি বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা নিতে ইতিমধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমতি চেয়েছে পুলিশ সদর দফতর। অনুমতি মিললেই চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে ‘অ্যাকশনে’ যাবে পুলিশ।এ বিষয়ে পুলিশ সদর দফতরের উচ্চপর্যায়ের এক কর্মকর্তা গণমাধ্যম কে বলেন, চাঁদা আদায়ের বিষয়টি এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে, বিষয়টি যেন প্রাতিষ্ঠানিক রূপ নিয়েছে। কোনো কোনো সিটি কর্পোরেশন বা পৌরসভা টার্মিনালের বাইরে বক্স বসিয়ে অর্থ আদায় করছে। যা সম্পূর্ণ অবৈধ!

এ ধরনের চাঁদা আদায় না করতে ২০১৫ সালের ৩ ডিসেম্বর স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় থেকে একটি প্রজ্ঞাপনও জারি করা হয়। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ট বিভাগীয় কমিশনার, পুলিশ কমিশনার, ডিআইজি, জেলা প্রশাসক এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে চিঠিও দেয়া হয়। এরপরও বন্ধ হচ্ছে না চাঁদাবাজি। কারণ এর পেছনে রয়েছে অনেক প্রভাবশালী। আর এ কারণেই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দিকনির্দেশনা চাওয়া হয়েছে।

About Imran Nakib

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Powered by Dragonballsuper Youtube Download animeshow